সমর্থক না থাকলে খুবই অদ্ভুত লাগবে

ডেস্ক রিপোর্ট:গ্যালারির উত্তেজনা না থাকলে খেলোয়াড়দের জন্য পারফরম্যান্স করা সত্যিই কঠিন হয়ে যায়। দর্শকরাই মূলত খেলোয়াড়ের মধ্যে বাড়তি উৎসাহ উদ্দিপনা যোগান। কিন্তু করোনাভাইরাসের কারণে বাধ্য হয়েই খেলোয়াড়দের দর্শকশূন্য মাঠে খেলতে হবে। আর এটা ভাবতেও অবাক লাগছে লিওনেল মেসির।

করোনাভাইরাসের বিরতি কাটিয়ে অনুশীলনে ফিরেই প্রথম সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেছেন বার্সেলোনার সুপারস্টার লিওনেল মেসি। স্পেনের পত্রিকাকে দেয়া মেসির সাক্ষাৎকারটি বার্সার ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হয়েছে।

প্রশ্ন: কোয়ারেন্টিনের সময় বাড়িতে কেমন কেটেছে?

লিওনেল মেসি: নিজেকে ফিট রাখতে বাড়িতে অনুশীলনের মধ্যেই ছিলাম। শারীরিক দিক থেকে খুব ভালো অবস্থায়ই আছি। তবে সেটা তো কখনোই দলের সঙ্গে কোচিং স্টাফের সামনে অনুশীলন করার মতো হবে না।

মানসিক দিক থেকে আমরা সবাই কঠিন সময় পার করছি। কারণ, এটা অদ্ভুত এক সময়। কিন্তু আমার স্ত্রী আন্তোনেল্লা রোকুজ্জো আর বাচ্চাদের সঙ্গে সময়টা ভালোই কেটেছে। এ সময়ে এমন অনেক কিছু করতে পেরেছি, যেটা স্বাভাবিক সময়ে আমরা পারি না।

প্রশ্ন: করোনায় খেলাধুলা চালিয়ে যেতে কি ধরনের সতর্কতা অবলম্বন করা যেতে পারে?

লিওনেল মেসি: করোনা প্রতিরোধের জন্য সচেতনতা ও প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা নেয়াটা জরুরি। অনুশীলনে ফেরাটা প্রথম ধাপ। তবে আমাদের সব ধরনের সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে। যাতে করে আমরা আবার খেলা শুরু করতে পারি। দর্শকশূন্য গ্যালারিতে খেলা হলেও আমাদের সতর্ক থাকতে হবে।

প্রশ্ন: দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে খেলা প্রসঙ্গে কিছু বলুন।

লিওনেল মেসি: আমি তো আবার খেলা শুরু করার জন্য উন্মুখ হয়ে আছি। গ্যালারিতে কোনো সমর্থক থাকবে না, এটা অবশ্য খুব অদ্ভুত লাগবে। মাঝের বিরতিটা হয়তো আমাদের জন্য ভালোই হয়েছে। তবে এখন দেখি, খেলা শুরু করা যায় কি না। তাহলেই বুঝতে পারব আমরা যেভাবে মৌসুম শুরু করেছিলাম, সেই সময়ের তুলনায় কী অবস্থায় আছি।

আমাদের এই দলটির প্রতি পুরো আস্থা আমার আছে। বাকি সব টুর্নামেন্ট জেতার সামর্থ যে আমাদের আছে এ নিয়েও আমার সংশয় নেই। সবারই নিজস্ব মত আছে, সব মতই সম্মান করি। কিন্তু আমরা যেভাবে খেলছিলাম তাতে আমাদের চ্যাম্পিয়নস লিগ জেতার সুযোগ ছিল না।

প্রশ্ন: করোনাভাইরাস পরবর্তী দলবদল নিয়ে বলুন।

লিওনেল মেসি: দলবদলের বাজারও অন্য রকম হবে। তবে আমরা এর আগে যা করেছি ঠিক সেভাবে ঠিক সিদ্ধান্ত নিতে হবে আমাদের। আমি ঠিক জানি না, লওতারো মার্তিনেজকে ক্লাব আনবে কি না। সে দুর্দান্ত এক ফরোয়ার্ড, সম্পূর্ণ একজন ফুটবলার। সে ভালো ড্রিবল করে। গোলক্ষুধা আছে, আবার বল নিয়ন্ত্রণেও ভালো। জানি না শেষ পর্যন্ত ওর বা বাকি যাদের নিয়ে কথা হয়েছে তাদের সবার বেলায় আসলে কী ঘটবে।

শেয়ার করুন